চার্জার ফ্যান প্রাইস ইন বাংলাদেশ ২০২৪ – ফিলিপস চার্জার ফ্যানের দাম বাংলাদেশে বর্তমান

আপনি হয়তো গরমে অতিষ্ঠ হয়ে চার্জার ফ্যান খুঁজতে এসেছেন? আজ আমি আপনাকে চার্জার ফ্যান সম্পর্কে বিস্তারিত জানিয়ে দেব সেই সাথে জানাবো চার্জার ফ্যান প্রাইস ইন বাংলাদেশ ২০২৪ – বর্তমান দাম কত। কোন ফ্যান ভালো হবে? ভালো ফ্যানের দাম কত? সবকিছু জানতে পারবেন আমার এই পোস্টটি মনোযোগ সহকারে পড়লেঃ

পোস্ট সূচীপত্রঃ চার্জার ফ্যান প্রাইস ইন বাংলাদেশ ২০২৪ – বর্তমান দাম

  • চার্জার ফ্যান দাম
  • চার্জার ফ্যান প্রাইস ইন বাংলাদেশ ২০২৪
  • ভিশন চার্জার ফ্যান দাম
  • সিঙ্গার চার্জার ফ্যানের দাম
  • সিঙ্গার মালিকার ফ্যানের দাম ২০২৪
  • ওয়ালটন চার্জার ফ্যান
  • ওয়ালটন চার্জার ফ্যান প্রাইস
  • নোভা চার্জার ফ্যান
  • ক্লিক চার্জার ফ্যানের দাম
  • ফিলিপস চার্জার ফ্যানের দাম বাংলাদেশে
  • ডিফেন্ডার চার্জার ফ্যান দাম
  • ছোট চার্জার ফ্যানের দাম
  • চার্জার ফ্যান কোনটা ভালো

চার্জার ফ্যান এর দাম ২০২৪

বাংলাদেশের বর্তমান পরিস্থিতিতে এখন একটি চার্জার ফ্যান সকলের কাছে সোনার হরিণ। অতিরিক্ত লোডশেডিং এর জন্য বাংলাদেশের মানুষ এখন অতিষ্ট প্রায়। বিশেষ করে যাদের ছোট বাচ্চা আছে তারা বেশি চিন্তিত।

আর বেশি চিন্তা করতে হবে না। চলুন আজকে আমি বাংলাদেশের বিভিন্ন চার্জার ফ্যান এর দাম ২০২৪ সম্পর্কে আপনাদের একটু ধারণা দেই।

বাংলাদেশের অধিকাংশ মানুষই সহজ-সরল এবং সাদাসিদে যার জন্য তারা মানুষের কথাই সহজেই বিশ্বাস করে নেয়। কিন্তু আসলে কোন ফ্যানটি ভালো কেউ জানে না। ভালো ফ্যানের দাম কত হয় সেটিও তারা জানে না।

আমার এই পোস্টটি মনোযোগ সহকারে পড়ুন আশা করি কোন কোন ফ্যান ভালো। আপনি নিতে পারবেন তার একটি ধারণা পেয়ে যাবেন ইনশাল্লাহ।

বাংলাদেশে বিভিন্ন কোয়ালিটির ফ্যান রয়েছে এবং কোয়ালিটি অনুযায়ী একেকটি চার্জার ফ্যান দাম একেক রকম হয়ে থাকে। কোয়ালিটি অনুযায়ী নিচে ভালো মানের এবং নিম্নমানের সব ধরনের কিছু চার্জার ফ্যানের নাম এবং চার্জার ফ্যান এর দাম ২০২৪ বিস্তারিত দেওয়া হলঃ চার্জার ফ্যান প্রাইস ইন বাংলাদেশ ২০২৪।

প্রথমে জেনে নেওয়া যাক বাংলাদেশের জনপ্রিয় এবং ভালো মানের ফ্যানগুলোর নাম, ভিশন চার্জার ফ্যান, সিঙ্গার চার্জার ফ্যান, সিঙ্গার চার্জার ফ্যান, ওয়ালটন চার্জার ফ্যান, ক্লিক চার্জার ফ্যান, নোভা চার্জার ফ্যান, ইত্যাদি চার্জার ফ্যান রয়েছে বাংলাদেশে।

চার্জার ফ্যান প্রাইস ইন বাংলাদেশ

এছাড়াও বিভিন্ন চায়না কোম্পানির এর চার্জার ফ্যান রয়েছে যেগুলো দামে সস্তা, তো চলুন জেনে নেওয়া যাক একে একে সবগুলোঃ

ভিশন চার্জার ফ্যান দাম

আপনারা হয়তো অনেকে জানেন আবার অনেকেই জানেন না ভীষণ হচ্ছে বাংলাদেশের জনপ্রিয় এবং ভালো মানের একটি কোম্পানি। আর এর মান ভালো হওয়ার জন্যই এ কোম্পানির সকল প্রোডাক্টের দাম একটু বেশি হয়ে থাকে। সেরকমই ভিশন চার্জার ফ্যান দাম একটু বেশি তবে এর সার্ভিস ভালো পাবেন আশা করি।

চার্জার ফ্যান প্রাইস ইন বাংলাদেশ

ভিশন চার্জার ফ্যান দাম ৩৫০০ টাকা থেকে শুরু এবং এর বিভিন্ন কোয়ালিটি অনুযায়ী আরো দাম বেশি রয়েছে কিন্তু এর কমে ভিশন চার্জার ফ্যান অফিসিয়ালি ভাবে পাবেন না।আশা করি বিষয়টি বুঝতে পেরেছেন।

আরো পড়ুনঃ ডাবল গ্যাসের চুলার দাম বাংলাদেশ ২০২৪

ভিশন চার্জার ফ্যান দাম সম্পর্কে আরো বিস্তারিত জানতে চাইলে নিচের নীল রংয়ের লিংকটিতে চাপ দিনঃ

সিঙ্গার চার্জার ফ্যানের দাম

সিঙ্গার বাংলাদেশের একটি পরিচিত কোম্পানি। এ কোম্পানি মূলত বিভিন্ন ধরনের ইলেকট্রনিক্স সামগ্রী বিক্রয় করে থাকে। যেমন ওয়াশিং মেশিন চার্জার ফ্যান লাইট টিভি ফ্রি সহ অন্যান্য।
চার্জার ফ্যান প্রাইস ইন বাংলাদেশ
সিঙ্গার চার্জার ফ্যানের দাম মূলত দুই হাজার টাকা থেকে শুরু হয়ে ১০০০০ টাকা পর্যন্ত হয়।সিঙ্গারও একটি ভালো ব্যান্ড তাই এর দামও একটু বেশি। একটা কথা মনে রাখবেন চার্জার ফ্যান যত বেশি দাম দিয়ে কিনবেন ব্যাটারি ব্যাকআপ তত বেশি ভালো পাবেন।
সিঙ্গার ব্যান্ডের ফ্যান মূলত ৬০০০ টাকার উপরে কিনলে আপনি ভাল কোয়ালিটির ফ্যান পাবেন। আশা করি বিষয়টি বুঝতে পেরেছেন। এবার চলুন আরও অন্যান্য চার্জার ফ্যান দাম এবং বিস্তারিত জেনে নেওয়া যাক। সিঙ্গার চার্জার ফ্যান দাম সম্পর্কে আরো বিস্তারিত জানতে চাইলে নিচের নীল রংয়ের লিংকটিতে চাপ দিনঃ

সিঙ্গার মালিকার ফ্যানের দাম ২০২৪

প্রিয় পাঠক বিন্দু আপনাদের মধ্যে অনেকেই জানতে চেয়েছেন সিঙ্গার মালিকার ফ্যানের দাম ২০২৪ সম্পর্কে। আমার আজকের এই পোস্টটিতে সিঙ্গার চার্জার ফ্যানের দাম ২০২৪ সম্পর্কে বিস্তারিত স্টেট বাই স্টেট তুলে ধরা হয়েছে। আপনি যদি সম্পূর্ণ মনোযোগ দিয়ে পড়েন তাহলে অবশ্যই এতক্ষণে জেনে গেছেন সিঙ্গার চার্জার ফ্যানের দাম কত।

ওয়ালটন চার্জার ফ্যান

আপনারা সকলেই হয়তো জানেন যে ওয়ালটন বাংলাদেশী পণ্য। তাই এটি বাংলাদেশের একটি জনপ্রিয় ব্র্যান্ড। ওয়ালটন চার্জার ফ্যান আপনি বাংলাদেশের সব জায়গা থেকেই কিনতে পারবেন। ওয়ালটন চার্জার ফ্যানের কোয়ালিটি মোটামুটি ভালো।
চার্জার ফ্যান প্রাইস ইন বাংলাদেশ

ওয়ালটন চার্জার ফ্যানের বিভিন্ন মডেল রয়েছে, সেই অনুযায়ী দাম হয়ে থাকে। তাহলে চলুন নিচে জেনে নেওয়া যাক ওয়ালটন ব্র্যান্ডের চার্জার ফ্যানের দাম কেমন হতে পারে।

ওয়ালটন চার্জার ফ্যান প্রাইস

ওয়ালটন চার্জার ফ্যান প্রাইস ৩৩৯০ টাকা সর্বনিম্ন প্রাইস এবং এর সর্বোচ্চ দাম ৬৪৯০ টাকা পর্যন্ত হয়। যা ওয়ালটন কোম্পানি তাদের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে দিয়ে রেখেছে।
এছাড়াও মডেল অনুযায়ী কয়েকটি ফ্যানের দাম নিচে দেওয়া হলঃ
  • এছাড়াও মডেল অনুযায়ী কয়েকটি ফ্যানের দাম নিচে দেওয়া হলঃ
  • ওয়ালটন চার্জার ফ্যান প্রাইস W17OA-AS এই মডেলের প্রাইস ৬৪৯০ টাকা
  • ওয়ালটন চার্জার ফ্যান প্রাইস W17OA-MS এই মডেলের প্রাইস ৬১০০ টাকা
  • ওয়ালটন চার্জার ফ্যান প্রাইস W17OA-EM-MS এই মডেলের প্রাইস ৫৭০০ টাকা
  • ওয়ালটন চার্জার ফ্যান প্রাইস WRTF14A এই মডেলের প্রাইস ৪৩৯০ টাকা
  • ওয়ালটন চার্জার ফ্যান প্রাইস WRTF12A এই মডেলের প্রাইস ৩৯৯০ টাকা
এছাড়াও ওয়ালটন চার্জার ফ্যান প্রাইস আরো বিস্তারিত জানতে চাইলে নিচের নীল রংয়ের লিংকটিতে চাপ দিনঃ

নোভা চার্জার ফ্যান

বর্তমানে দিন দিন সকলের কাছে নোভা চার্জার ফ্যান ও জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে। নোভা চার্জার ফ্যান দাম ১৫০০ টাকা শুরু এবং ১৪৫০০ টাকা সর্বোচ্চ দাম হয়ে থাকে। বর্তমানে বাজারে নোভার দুটি চার্জার ফ্যান জনপ্রিয় ভাবে পাওয়া যাচ্ছে।
চার্জার ফ্যান প্রাইস ইন বাংলাদেশ
একটি হলো Nova NV-3001 মডেল ১২ ইঞ্চি সাইজ যার দাম ১৫০০ টাকা। আর আরেকটি হল Nova NV-3061 মডেল এটিও ১২ ইঞ্চির নোভা চার্জার ফ্যান এর দাম ১৪৪৫০ টাকা। আশা করি বুঝতে পেরেছেন।

আরো পড়ুনঃ আর এফ এল গ্যাসের চুলার দাম বাংলাদেশ ২০২4

নোভা চার্জার ফ্যান সম্পর্কে আরো বিস্তারিত জানতে চাইলে নিচের নীল রংয়ের লিংকটিতে চাপ দিনঃ

ক্লিক চার্জার ফ্যানের দাম

বর্তমান বাজারে ক্লিক চার্জার ফ্যান দুইটি মডেলের রয়েছে। ক্লিক ইউএসবি চার্জার ফ্যানের দাম ২৮৯০ টাকা এই ক্লিক চার্জার ফ্যান মূলত ১২ ইঞ্চি একটি ফ্যান। আরেকটি হল ১৬ ইঞ্চির টেবিল ফ্যান যার বর্তমান প্রাইজ ১৯০০ টাকার মতো।

চার্জার ফ্যান প্রাইস ইন বাংলাদেশ
আপনার বাজেট অনুযায়ী এ দুটির মধ্যে যেকোনো একটি নিতে পারেন। ক্লিক চার্জার ফ্যান বর্তমানে দিন দিন জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে। এছাড়াও ক্লিক চার্জার ফ্যানের দাম আরো বিস্তারিত জানতে চাইলে নিচের নীল রংয়ের লিংকটিতে চাপ দিনঃ

ফিলিপস চার্জার ফ্যানের দাম বাংলাদেশে

আপনারা হয়তো জানেন ফিলিপস একটি বিদেশি কোম্পানি। এবং এটি খুব ভালো মানের একটি কোম্পানি। ফিলিপস কোম্পানি খুব ভালো মানের চার্জার ফ্যান তৈরি করে থাকে। ফিলিপস চার্জার ফ্যান থেকে আপনি অন্তত তিন থেকে চার ঘণ্টা ব্যাকআপ পাবেন । এদের ব্যাটারি ব্যাকআপ খুবই ভালো মানের। ফিলিপস চার্জার ফ্যানের দাম বাংলাদেশে সেরকমভাবে কোথাও দেওয়া নেই।
চার্জার ফ্যান প্রাইস ইন বাংলাদেশ
তবে বাংলাদেশে খুব জনপ্রিয় ফিলিপসের একটি চার্জার ফ্যান। উক্ত ফিলিপস চার্জার ফ্যানের দাম বাংলাদেশে ৪৫০০ টাকা। বর্তমানে দামটি কমতে পারে কিংবা বাড়তেও পারে।আপনি আপনার আশেপাশের কোন দোকানে দাম জেনে সেটি কিনবেন।
ফিলিপস চার্জার ফ্যানের দাম বাংলাদেশে অনলাইনে সেরকম ভাবে কোথাও এভেলেবেল দেওয়া নেই তাই এই ফ্যানটি সম্পর্কে আর বিস্তারিত না দিতে পারায় আমি আন্তরিকভাবে দুঃখিত। আশা করি বিষয়টি বুঝতে পেরেছেন। অবশ্যই আপনি এই ফিলিপস চার্জার ফ্যান ব্যভহার করে দেখতে পারেন।

ডিফেন্ডার চার্জার ফ্যান দাম

বর্তমান বাংলাদেশের লোডশেডিং এর বাজারে ডিফেন্ডার চার্জার ফ্যানের চাহিদা অনেক বেশি। কেননা ডিফেন্ডার চার্জার ফ্যান খুব স্বল্প মূল্যে পাওয়া যায়। এবং বাংলাদেশের সব জেলাতেই ডিফেন্ডার চার্জার ফ্যান পাওয়া যায়।
চার্জার ফ্যান প্রাইস ইন বাংলাদেশ
ডিফেন্ডার চার্জার ফ্যানের দাম বলার আগে বলে রাখি যে ডিফেন্ডার চার্জার ফ্যানের জনপ্রিয় চারটি মডেল বাজারে খুব বেশি বিক্রি হচ্ছে। আপনি গরম থেকে বাঁচতে চাইলে ডিফেন্ডার ফ্যান অবশ্যই আপনার প্রয়োজন।
ডিফেন্ডার চার্জার ফ্যান সর্বনিম্ন ২৫০০ টাকা এবং সর্বোচ্চ ৪০০০ টাকা থেকে ৫০০০ টাকার মধ্যে আপনি নিতে পারবেন। এবার জেনে নেওয়া যাক বিস্তারিত ডিফেন্ডার চার্জার ফ্যান দাম চারটি মডেল এবং প্রাইস দেওয়া হলো নিচেঃ
  • Defender KN-2914 এটি ১৪ ইঞ্চির চার্জার ফ্যান এবং এর মূল্য ৪৯৯০ টাকা যা সর্বোচ্চ।
  • Defender 0012 এটি ১২ ইঞ্চির চার্জার ফ্যান এবং এর মূল্য ৪১২০ টাকা
  • Defender DF-5922D এটি ১২ ইঞ্চির চার্জার ফ্যান এবং এর মূল্য ৩১৫০ টাকা
  • Defender KM-F0082 এটিও ১২ ইঞ্চির চার্জার ফ্যান এবং এর মূল্য ২৫০০ টাকা যা সর্বনিম্ন।
এছাড়াও আপনি চাইলে ডিফেন্ডার চার্জার ফ্যান দাম আরো বিভিন্ন কোয়ালিটি অনুযায়ী বিভিন্ন রকমের দাম দিয়ে কিনতে পারবেন। ডিফেন্ডার চার্জার ফ্যান দাম সম্পর্কে আরো বিস্তারিত জানতে চাইলে নিচে থাকা নীল রংয়ের লিংকটিতে চাপ দিনঃ

ছোট চার্জার ফ্যানের দাম

বাংলাদেশের সবচেয়ে জনপ্রিয় ফ্যান হচ্ছে ছোট চার্জার ফ্যান। এর দাম হাতের নাগালে হওয়ায় ছোট বড় সকলেই এই ফ্যানটি কিনে ব্যবহার করতে পারে। বিদ্যুৎ চলে গেলে হাত পাখা দিয়ে অনেকে বাতাস করে তার পরিবর্তে চাইলে খুব সহজে Mini Rechargeable Fan দিয়ে বাতাস গায়ে লাগাতে পারেন।
চার্জার ফ্যান প্রাইস ইন বাংলাদেশ

Mini Rechargeable Fan বা ছোট চার্জার ফ্যানের দাম বাজারে সর্বনিম্ন ৫০০ টাকা থেকে শুরু করে ২০০০ টাকার মধ্যে পেয়ে যাবেন। ছোট চার্জার ফ্যানের দাম অনুযায়ী অনেক সুবিধা রয়েছে। যেমন এটি সাথে করে নিয়ে ঘুরতে পারবেন যেকোনো জায়গায়।

সবচেয়ে বড় সুবিধা হল ছোট চার্জার ফ্যানের ব্যাটারি ব্যাকআপ অনেক ভালো 10 থেকে 12 ঘন্টা আপনি ব্যাটারি ব্যাকআপ পাবেন। এবং অনেক ছোট চার্জার ফ্যানে লাইট রয়েছে।কারেন্ট চলে গেলে আপনি বাতাস গায়ে লাগানোর সঙ্গে লাইট জ্বালিয়ে রাখতে পারবেন।

এছাড়াও আপনি Mini Rechargeable Fan বা ছোট চার্জার ফ্যানের দাম জানতে এবং এর বিভিন্ন কোয়ালিটি দেখতেনিচে থাকা নীল রংয়ের লিংকটিতে চাপ দিনঃ

ছোট চার্জার ফ্যানের দাম ২০২৪

চার্জার ফ্যান কোনটা ভালো

প্রিয় পাঠক বিন্দু আশা করি আপনারা এতক্ষণে চার্জার ফ্যান প্রাইস ইন বাংলাদেশ ২০২৪ – ফিলিপস চার্জার ফ্যানের দাম বাংলাদেশে বর্তমান কত সেই সম্পর্কে বিস্তারিতভাবে জানতে পেরে গেছেন। চার্জার ফ্যান কোনটা ভালো এটি নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করব অন্য আরেকটি পোস্টে সে অপেক্ষায় সকলে ভালো থাকুন ধন্যবাদ।

Assalamu Alaikum! Hello world, I am Md. Hafijul Islam (mhihafijul). I am a Bangladeshi SEO expert. And I have been writing high quality Bengali content for a long time. I can write very nice SEO friendly articles. Along with that we do onpage seo, offpage seo and technical seo in proper guidelines. For which every article I write ranks on Google's fast page.

Sharing Is Caring:

Leave a Comment

error: Content is protected !!